ঢাকা শনিবার, সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৯



ওয়ালটন ফ্রিজ কিনে নতুন গাড়ি পেলেন নোয়াখালীর মহিন

নিজস্ব প্রতিবেদক: সারা দেশে চলছে ওয়ালটনের ডিজিটাল ক্যাম্পেইন সিজন ফোর। এদিকে সামনেই ঈদুল ফিতর বা রোজার ঈদ। এ উপলক্ষ্যে ফ্রিজের ক্রেতাদের নতুন গাড়ি উপহার পাওয়ার সুযোগ দিচ্ছে ওয়ালটন। যার আওতায় ওয়ালটনের ফ্রিজ কিনে নতুন গাড়ি পেলেন নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলার বাসিন্দা মো. মহিন উদ্দিন। উল্লেখ্য, গত ১১ মে নতুন গাড়ি পেয়েছিলেন কিশোরগঞ্জের আব্দুল মমিন বাচ্চু।

গত বৃহস্পতিবার নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে ওয়ালটনের পরিবেশক শোরুম ফেমাস ইলেকট্রনিক্সের সামনে ‘গাড়ি হস্তান্তর’ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। মহিনের হাতে নতুন গাড়ির চাবি তুলে দেন ওয়ালটনের নির্বাহী পরিচালক মো. এমদাদুল হক সরকার ও হুমায়ুন কবীর।

সেসময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ফেমাস ইলেকট্রনিক্সের সত্ত্বাধিকারী নজরুল ইসলাম, বজরা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মিরন হোসেনসহ স্থানীয় ব্যক্তিবর্গ।

ওয়ালটন ফ্রিজ কিনে উপহার পাওয়া নতুন গাড়ির চাবি বিজয়ী মহিন উদ্দিনের হাতে তুলে দেয়া হচ্ছে।

ওয়ালটন কর্তৃপক্ষ জানায়, অনলাইনের মাধ্যমে বিক্রয়োত্তর সেবা কার্যক্রমকে আরো দ্রুত করতে কাস্টমার ডাটাবেজ তৈরি হচ্ছে। সেজন্য সারা দেশে চলছে ডিজিটাল ক্যাম্পেইন। এর আওতায় ফ্রিজের ক্রেতাদের জন্য রয়েছে কোটি কোটি টাকার ক্যাশ ভাউচার বা অসংখ্য পণ্য ফ্রি পাওয়ার সুযোগ। এসব সুবিধার পাশাপাশি রোজার ঈদ উপলক্ষ্যে দেয়া হচ্ছে নতুন গাড়ি পাওয়ার সুযোগ। দেশের যে কোনো ওয়ালটন প্লাজা, পরিবেশক শোরুম এবং ই-প্লাজা থেকে ফ্রিজ কিনে রেজিস্ট্রেশনের মাধ্যমে ক্রেতারা পেতে পারেন নতুন গাড়ি, এক লাখ টাকা পর্যন্ত নিশ্চিত ক্যাশ ভাউচার বা ফ্রিজ, টিভিসহ অসংখ্য পণ্য ফ্রি। ঈদ উপলক্ষ্যে ক্রেতাদের বিশেষ কিছু উপহার দিতেই ওয়ালটনের এই উদ্যোগ।

বেসরকারি টেলিকম কোম্পানিতে কর্মরত মো: মহিন উদ্দিন গত ১৫ মে ফেমাস ইলেকট্রনিক্স থেকে ২৯ হাজার ৫’শ টাকায় ওয়ালটনের সাড়ে ১৫ সিএফটি’র গ্লাস ডোর রেফ্রিজারেটর কিনেন। এরপর নিজস্ব মোবাইল নম্বর থেকে তার নাম ও পণ্যের বিবরণ লিখে মেসেজের মাধ্যমে রেজিস্ট্রেশন করেন। কিছুক্ষণ পরেই ওয়ালটনে কাছ থেকে নতুন গাড়ি উপহার পাওয়ার একটি ফিরতি মেসেজ পান তিনি।

এর প্রতিক্রিয়ায় মহিন বলেন, ফ্রিজ কিনে গাড়ি পেয়েছি- এই আনন্দের অনুভূতি বলে বোঝানো যাবে না। পরিবারকে সারপ্রাইজ দিবো ভেবে ফ্রিজ কেনার কথা কাউকে বলিনি। কিন্তু, নতুন গাড়ি উপহার পেয়ে নিজেই সারপ্রাইজড হয়ে গেলাম। এবারের ঈদ হবে আমার জীবনের সেরা ঈদ। এজন্য ওয়ালটনকে ধন্যবাদ।

অনুষ্ঠানে বজরা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান পরিষদের চেয়ারম্যান মিরন হোসেন বলেন, ওয়ালটন শুধু সেরা পণ্য ও সার্ভিসিই দেয় না, গ্রাহকদের দেয়া প্রতিশ্রুতিও শতভাগ রক্ষা করে। যার প্রমাণ- আজকের এই গাড়ি হস্তান্তর অনুষ্ঠান।

ওয়ালটন ডিস্ট্রিবিউটর মার্কেটিং চ্যানেলের প্রধান মো: এমদাদুল হক সরকার বলেন, গ্রাহকের হাতে সাশ্রয়ী মূল্যের আন্তর্জাতিক মানসম্পন্ন ফ্রিজ তুলে দিচ্ছে ওয়ালটন। সর্বোচ্চ মানের আতœবিশ্বাসে ফ্রিজে ১ বছরের রিপ্লেসমেন্ট গ্যারান্টিসহ কম্প্রেসরে দীর্ঘ ১২ বছরের গ্যারান্টি সুবিধা দিচ্ছে।

ওয়ালটনের নির্বাহী পরিচালক হুমায়ূন কবীর বলেন, আমরা ডিজিটাল পদ্ধতিতে পণ্য বিক্রি করছি। এতে ক্রেতা ও পণ্যটির সংশ্লিষ্ট তথ্য সার্ভারে সংরক্ষণ করা হচ্ছে। ফলে ওয়ারেন্টি কার্ড হারিয়ে ফেললেও সহজেই বিক্রয়োত্তর সেবা দেয়া যাচ্ছে। এ কার্যক্রমে ক্রেতাদের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণ উৎসাহিত করতেই নতুন গাড়িসহ ফ্রি পণ্য ও নিশ্চিত ক্যাশ ভাউচারের সুযোগ দেয়া হয়েছে।


আর্কাইভ